Khabar AajkalNewsPopular

বনগাঁয় লরিচালককে খুনের অভিযোগে গ্রেফতার ৩!!

বনগাঁয় লরিচালককে খুনের অভিযোগে গ্রেফতার ৩!!

উত্তর চব্বিশ পরগনার বনগাঁ পুরসভার তিন নম্বর ওয়ার্ডের চামড়াপোটি এলাকায় একটি লরিচালককে অপহরণ করে খুনের অভিযোগ। ওই লরিচালক সোনা পাচারের সাথে যু্ক্ত ছিল বলেও খবর। এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

ঘটনায় মৃত্যু বছর বাহান্নর গৌড় দত্তের। তিনি বনগাঁ পুরসভার তিন নম্বর ওয়ার্ডের চামড়াপোটি এলাকার বাসিন্দা। পরিবার সূত্রে খবর, গৌড় আগে সোনা পাচারের কাজের সঙ্গে যুক্ত ছিল। বর্তমানে তিনি লরি চালাতেন৷ সম্প্রতি লরি নিয়ে পেট্রাপোল বন্দর দিয়ে বাংলাদেশ গিয়েছিল গৌড়।

ওই লরিচালকের মেয়ে জানান, বাংলাদেশে বাবার কাছে একজন কয়েকটি সোনার বিস্কুট দিয়েছিলেন। বাংলাদেশ বর্ডার গার্ডের জওয়ানেরা সীমান্ত দিয়ে আসার সময় তাঁকে তল্লাশি চালায়। ওই সোনার বিস্কুটগুলি নিয়ে নেন জওয়ানরা৷ তারপর বাবা খালি হাতেই বাড়ি ফিরে আসেন৷ এরপরই বাড়িতে কয়েকজন লোক আসে৷ তারা বাবাকে সোনার বিস্কুটগুলোর ব্যপারে জিজ্ঞাসাবাদ করতে শুরু করেন। বাবা ঘটনার কথা তাদের খুলে বলে। তারা বাবাকে গাড়ি তল্লাশির নাম করে জোর করে নিয়ে যায়।

এরপর প্রায় বেশ কয়েক ঘন্টা কেটে যায়। গৌড়ের কোনও খোঁজ পাওয়া যায় না। পরিবারের লোকজন চিন্তিত হয়ে পড়েন। বনগাঁ থানার পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করে পরিবারের সদস্যরা ইতিমধ্যেই গোপালনগর থানার পুলিশ ফাঁড়ির পাশে এক ব্যক্তিকে গুরুতর আহত অবস্থায় পড়ে থাকার খবর পায়। গোপালনগর থানার পুলিশ তাঁকে উদ্ধার করে বনগাঁ হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরিবারের সদস্যেরা খবর পেয়ে হাসপাতালে পৌঁছন। তাঁরা জানতে পারেন, গৌড় বাবুর মৃত্যু হয়েছে।

পরিবারের দাবি, অপহরণ করে খুন করা হয়েছে ওই লরিচালককে। গৌড় দত্তের পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ তদন্ত শুরু করেছেন। এখনও পর্যন্ত মোট তিনজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিস। এছাড়াও এই ঘটনার সঙ্গে আরও কেউ জড়িত রয়েছে কিনা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সোনার বিস্কুটগুলি আদতে গৌড়ের কাছে ছিল কিনা,তাও তদন্ত করে দেখা হবে বলে পুলিস সুত্রে খবর।।

Related Articles

Back to top button