North Bengal

১৪ তম মৃত্যু দিবস পালন প্রয়াত সাংসদ আবু আতাউর গনি খাঁন চৌধুরীর।

মালদা জেলার রূপকার প্রয়াত সাংসদ আবু আতাউর গনি খাঁন চৌধুরীর ১৪ তম মৃত্যু দিবস পাল করল কংগ্রেস ও তৃণমূল কংগ্রেস।
রবিবার সকালে প্রয়াত সাংসদ গনি খান চৌধুরীর মাজারে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন দক্ষিণ মালদা কেন্দ্রের কংগ্রেস প্রার্থী আবু হাসেম খান চৌধুরী। অন্যদিকে গনি খান পরিবারের সদস্য আবু নাসের খান চৌধুরী, সাহানাজ কাদরি সহ অন্যান্য সদস্যরা গনি খান চৌধুরীর মাজারে শ্রদ্ধা জানান। এরপর মালদা শহরের রথবাড়ি এলাকায় প্রয়াত সাংসদ গনি খান চৌধুরীর মূর্তিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন আবু হাসেম খান চৌধুরী। কংগ্রেসের শ্রমিক সংগঠনের সভাপতি লক্ষ্মী গুহ কর্মী-সমর্থকদের নিয়ে সাংসদের মূর্তিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। অন্যদিকে তৃণমূলের পক্ষ থেকে বৃন্দাবনী ময়দান এলাকায় গনি খানের মূর্তিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়। মোথাবাড়ি বিধানসভার বিধায়িকা সাবিনা ইয়াসমিন,তৃণমূল নেতা নরেন্দ্রনাথ তিওয়ারিসহ অন্যান্য নেতা কর্মীরা রথবাড়ি এলাকায় গনি খাঁনের মূর্তিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয় কংগ্রেসের জেলা কার্যালয়েও।রথবাড়ি এলাকায় সেখানে মৌসম নুরের উপস্থিতি নিয়ে আবু হাসেম খান চৌধুরী কে প্রশ্ন করা হলে তিনি মেজাজ হারিয়ে ফেলেন। তিনি সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে বলেন, বারবার কেন এই প্রশ্ন করা হচ্ছে। এই বলে তিনি ভীষণ রেগে যান।
জানা গিয়েছে, কতুয়ালি পরিবারের সদস্য মৌসম নুর কংগ্রেস ছেড়ে উত্তর মালদা কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী হয়েছেন। এই নিয়ে পরিবারের সদস্যদের মধ্যে দুরত্ব তৈরি হয়েছে। তাই হয়তো এই প্রশ্ন শুনে মেজাজ হারান আবু হাসেম খান চৌধুরি।
অন্য দিকে উত্তর মালদা তৃণমূল প্রার্থী মৌসম বেনজির নূর জানান ভোটের লড়াইটা হল আইড্রলজিক্যাল লড়াই এটা বাইরে আছে বাড়ির ভিতর এই লড়াই কে প্রবেশ করতে কখনোই আমরা দেই না। কংগ্রেসের শ্রমিক সংগঠনের জেলা সভাপতি লক্ষী গুহ বলন, গনিখান চৌধুরি জেলার রুপকার তাই তার দেখানো পথেই চলতে চান তারা।

News: হক জাফর ইমাম।

Share this:

You may also like