North Bengal

মাস পয়লা বেতন না হওয়ায় প্রতিটি ব্লকে বি ডি ও কে বিক্ষোভ কর্মসূচি পঞ্চায়েত কর্মচারীদের।

গত ফেব্রুয়ারি মাসে মাস পয়লা বেতন না হওয়ায় প্রতিটি ব্লকে বি ডি ও কে বিক্ষোভ দেখালো পঞ্চায়েত কর্মচারীরা। এই দিনের বিক্ষোভ কর্মসূচির নেতৃত্ব দেন পঞ্চায়েত কর্মচারীদের বামপন্থী সংগঠন যৌথ কমিটির নেতৃত্বরা ।এদিন মালদা জেলার একমাত্র হরিশ্চন্দ্রপুর১ ব্লক ছাড়া প্রতিটি ব্লকেই ডেপুটেশন কর্মসূচি নেওয়া হয়। মূল প্রোগ্রাম হয় ইংলিশ বাজার ব্লক এ । যৌথ কমিটি ৬০ থেকে ৬০ জন কর্মচারী প্রতিটি এই ডেপুটেশন কর্মসূচিতে দেখা যায়। এদিন ইংলিশ বাজার, কালিয়াচক ১,২,৩ নং ব্লকে যৌথ কমিটির সদস্যরা স্পষ্ট জানিয়ে দেয় আগামী দুই দিনের মধ্যে বেতন না হলে তারা সমস্ত কর্মচারী পঞ্চায়েতের কাজ না করে বিডিও অফিসে পেন ডাউন করে ধরনায় বসবে। এদিন ইংলিশ বাজার ব্লক মূলত যৌথ কমিটি যুগ্ম সম্পাদক পল্টু মিশ্র , ও সম্পাদক মৃন্ময় দাসের নেতৃত্বে বিক্ষোভ সমাবেশ হয় ।ইংলিশ বাজার ব্লক ছাড়াও বিক্ষোভ সমাবেশ হতে দেখা যায় কালিয়াচক ২ নম্বর ব্লকে নেতৃত্ব দেন যৌথ কমিটির নেতা পার্থ দত্ত কালিয়াচক ৩ নম্বর ব্লকে নেতৃত্ব দেন যৌথ কমিটির নেতা আব্দুল কালাম আজাদ এবং কালিয়াচক ঠিক করে কথা হবিপুড়ে এই বিক্ষোভ কর্মসূচিতে নেতৃত্ব দেন জয়ন্ত ঝা , গাজোলে সত্যজিত মিত্র, রতুয়া দুই বিক্রম সিংহ , রতুয়া এক মনোজ দাস , চাচল দুই এ রেজাউল করিম , চাচল এক সুশিল চন্দ্র দাস এই বিক্ষোভ কর্মসূচিতে নেতৃত্ব দেন ।

মালদা জেলা যৌথ কমিটির যুগ্ম সম্পাদক পল্টু মিশ্র জানিয়েছেন “আমরা আমরা হাড়ভাঙা পরিশ্রম করে পঞ্চায়েতের সমস্ত স্ক্রীন সাফল্যমন্ডিত করি প্রতিটি দপ্তর যখন 1 তারিখে বেতন পাবে তখন আমরা কেন বঞ্চিত হব আমরা দুদিনের মধ্যে বেতন না হলে প্রত্যেক কর্মচারী বিডিও অফিসে সমস্ত কাজকর্ম পঞ্চায়েতের বন্ধ করে দেওয়া হবে বন্ধ করে দেবো” বিডিও ইংলিশ বাজারের বিডিও সুস্মিতা জানিয়েছেন আমরা বিষয়টি উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে শীঘ্রই জানাবো ।যেন পঞ্চায়েত কর্মীদের খুব তাড়াতাড়ি বেতন হয় এদিন রাজ্য কমিটি কর্মচারীরা বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন। এছাড়াও রাজ্যের প্রিন্সিপাল সেক্রেটারির কাছে ও প্রতিনিধি দল কর্মচারীদের বেতনের না হওয়ার জন্য লিখিত অভিযোগ জানন।

News: হক জাফর ইমাম।

Share this:

You may also like