North Bengal

এক মাসের শিশুকন্যা আলুর খেত থেকে উদ্ধার।

এক মাসের শিশুকন্যা আলুর খেত থেকে উদ্ধারে চাঞ্চল্য ছড়াই এলাকায়। বুধবার সকালে ওই কন্যাসন্তানকে আলুর খেতে পড়ে থাকতে দেখেন পুরাতন মালদার শিমুলঢাব গ্রামের গৃহবধূ কমলা কিসকু৷ আলুর খেতে কাজ করতে তিনি পাশের ঝাড়পুকুরিয়া গ্রামে গিয়েছিলেন৷ তিনি ওই সন্তানের অভিভাবকদের খোঁজ করেও ব্যর্থ হয়ে বাচ্চাটিকে নিজের বাড়িতে নিয়ে যান৷ কিন্তু শিশুটির কান্না সামাল দিতে না পেরে তিনি তাকে নিয়ে যান স্থানীয় ধুমাদিঘি সাবসেন্টারে৷ সেখানে তিনি সাবসেন্টারের কর্মীদের সব কথা খুলে বলেন৷ এরপর সাবসেন্টারের কর্মীদের কাছ থেকে খোঁজ পেয়ে মালদা থানার পুলিশের সহযোগিতায় জেলা চাইল্ড লাইনের কর্মীরা শিশুটিকে নিজেদের হেপাজতে নেন৷ বর্তমানে শিশুটিকে মালদা মেডিকেলে কলেজ এন্ড হাসপাতালৈ ভর্তি করা হয়েছে৷ ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে পুরাতন মালদার ভাবুক গ্রাম পঞ্চায়েতের আদিবাসী অধ্যুষিত গ্রামগুলিতে৷ আলু খেতে শিশু উদ্ধারের খবর পেয়ে এই দিন দুপুরে ঝাড়পুকুরিয়া গ্রামে ছুটে যান জেলা চাইল্ড লাইনের দুই কর্মী স্বপ্না কর্মকার ও চিন্ময় দাস৷ তাঁরা মালদা থানার পুলিশের সহযোগিতায় শিশুকন্যাটিকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন৷ চিন্ময়বাবু বলেন, ১০৯৮ নম্বর থেকে ফোন করে তাঁদের বাচ্চা উদ্ধারের খবর জানানো হয়৷ সেই খবর পেয়েই তাঁরা পুলিশের সাহায্য নিয়ে ঘটনাস্থলে যান৷ সেখান থেকে শিশুকন্যাটিকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন৷ বাচ্চাটির বয়স প্রায় এক মাস৷ দেখে মনে হচ্ছে, সে খানিকটা অসুস্থ৷ এখান থেকে বাচ্চাটিকে আমরা মালদা মেডিকেলে নিয়ে যাচ্ছি৷ বাচ্চাটিকে কেউ বা কারা জমিতে ফেলে দিয়ে চলে গিয়েছে৷ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে মালদা থানার পুলিশ।

News: হক জাফর ইমাম।

Share this:

You may also like